Breaking News
Home / NEWS / গরিব মানুষের রেশন নিয়ে বড় ঘোষনা, এবার থেকে বাধ্যতামূলক ই-পাস, নাহলেই শা-স্তি!

গরিব মানুষের রেশন নিয়ে বড় ঘোষনা, এবার থেকে বাধ্যতামূলক ই-পাস, নাহলেই শা-স্তি!

ফের রেশন নিয়ে বড়োসড়ো সিদ্ধান্ত নিলেন রাজ্যের খাদ্য দপ্তর । রাজ্য সরকার হোক বা কেন্দ্রীয় সরকার , প্রত্যেকে চাই যে দেশের সাধারণ মানুষ এর যেন কোনোনসুবিধা না হয় । তার পাশাপাশি সধারণ মানুষের যাতে খাবারের অভাব না হয় সে দিকে খেয়াল রাখে সরকার ।আমাদের দেশের অধিকাংশ মানুষের আয় খুব কম । অনেক মানুষ আছেন যারা দরিদ্র সীমারেখার অনেক নিচে অবস্থান করে । এদেশে প্রায় ৪০% মানুষ একবেলা বা একদিন না খেয়ে দিন কাটাই । সেই সূত্রে জতে কেউ অ-না-হারে দিন না কাটাই তাই দেশে চালু করা হয়েছে রেশন ব্যবস্থা ।

রেশন ব্যবস্থা যে আজকের সুবিধা এমনটা কিন্তু নয় । আলাউদ্দিন খিলজি এই রেশন ব্যবস্থা চালু করেন প্রথন । সম্প্রতি বিশ্বের খাদ্য সূচকের একটি সমীক্ষার ফলফাফল বেরিয়েছে যেখানে ভারত ক্ষু-দার দিক থেকে এগিয়ে । অর্থাৎ ভারতে অনাহারের মানুষ বেশি । ঠিক এই অবস্থায় দাঁড়িয়ে রেশন ব্যবস্থা এবং রেশন ডিলারের প্রতি উঠল অ-ভি-যো-গ। যদিও ৩১ মার্চ ২০২১ পর্যন্ত দেশে প্রায় ৮১ কোটির বেশি রেশন কার্ডের সুবিধা পাবেন ৷ সরকারের তরফে চেষ্টা করা হচ্ছে এক দেশ এক রেশন কার্ড চালু করে দেওয়ার সমস্ত রাজ্যে ৷

বর্তমানে ২৮টি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে এই যোজনা ইতিমধ্যেই চালু করে দেওয়া হয়েছে ৷ সম্প্রতি এক রেশন নিয়ে দু-র্নী-তি উঠে এসেছে এক অ-ভি-যো-গ । তাই এবার রেশন ব্যবস্থা নিয়ে করা হাতে পদক্ষেপ নিতে চলেছে খাদ্য দপ্তর জা-রি করল নতুন নিয়ম । যেটি না জানলে হয়তো হতে পারে আপনারও স-ম-স্যা । তাই আজকের এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে আপনাদের জানানোর চেষ্টা করব এমন ব্যবস্থা নিল খাদ্য দপ্তর যেটি না জানলে আপনি পড়তে পারেন অ-সু-বিধায়।

তবে প্রসঙ্গত উল্লেখ্য এ কথা আপনাকে জানি রাখা দরকার যে শুধুমাত্র আপনারা অসুবিধায় পড়বেন এমনটা নয় তার পাশাপাশি অ-সু-বিধায় পড়বে রেশন ডিলার বা ডিস্ট্রিবিউটর কারণ সম্প্রতি রেশন নিয়ে কা-লো-বা-জারি করার অ-ভি-যো-গ উঠেছে রেশন ডিলারের প্রতি তাই প্রত্যেকটি রেশন দোকানে ই পস যন্ত্র রাখা বাধ্যতামূলক করেছে খাদ্য দপ্তর । এই য-ন্ত্রটি যদি প্রতিটি রেশন দোকানে থাকে তাহলে গ্রাহকরা কতটা পরিমাণে রেশন পাচ্ছে বা রেশন ডিলার ঠিক মতন দিচ্ছে কিনা সমস্ত তথ্য সরাসরি যুক্ত হবে সরকারি পোর্টালে । যার ফলে কালোবাজারি করা হাতে দমন করা যাবে । এমনটা মনে করছে খাদ্য দপ্তর । তবে এই ব্যবস্থা যদি কেউ কান্না করেন পালন না করে তাহলে তার ক্ষেত্রে হতে পারে চরম শা-স্তি ।

Check Also

রাজ্যজুড়ে ভারি থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস! আবাহাওয় দফতরের সর্তকতা জারি

রাজ্যজুড়ে ভারি থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস! আবাহাওয় দফতরের সর্তকতা জারি- উত্তর প্রদেশের উপরে থাকা ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *