Breaking News
Home / NEWS / ‘অঙ্কিতা,কৃতী ছাড়া কেউ আমার সঙ্গে দেখা করেনি’,বললেন সুশান্তের বাবা কেকে সিং

‘অঙ্কিতা,কৃতী ছাড়া কেউ আমার সঙ্গে দেখা করেনি’,বললেন সুশান্তের বাবা কেকে সিং

সুশান্ত সিং রাজপুতের আ’ত্মহত্যার পর কেটে গিয়েছে ১১ দিন। তবুও একমাত্র ছেলের মৃত্যুশোক মেনে নিতে পারছে না গোটা পরিবার। সুশান্তের মৃ’ত্যুর পর প্রথমবার সাংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খুললেন সুশান্তের বাবা কেকে সিং। স্পটবয়ই’তে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন বলা হয়েছে সুশান্তের মৃ’ত্যুর পর একমাত্র কৃতী শ্যানন ও অঙ্কিতায় ব্যক্তিগতভাবে প্রয়াত অভিনেতার বাবার সঙ্গে দেখা করে শোকপ্রকাশ করেছেন।

১৪ জুন সুশান্তের বান্দ্রার অ্যাপার্টমেন্ট থেকে উদ্ধার হয় তাঁর ঝুলন্ত দেহ। বুধবার সুশান্তের ময়নাতদন্তের চূড়ান্ত রিপোর্টও বলছে আ’ত্মহত্যাই করেছেন সুশান্ত। ১৫ জুন সুশান্তের শেষকৃত্যে হাজির হয়েছিলেন কৃতী,অন্যদিকে পরের দিন ,মঙ্গলবার সুশান্তের বান্দ্রার বাড়িতে পৌঁছেছিলেন অঙ্কিতা।

কেকে সিং জানান,মুম্বইয়ের বাড়িতে অঙ্কিতা ছাড়া কেউই তাঁর সঙ্গে দেখা করতে আসেননি। তাঁর কথায়, অনেকেই এসেছিল কিন্তু আমার সঙ্গে বলেছে একমাত্র কৃতী শ্যানন ও অঙ্কিতা। আমি কিছু বলার অবস্থায় ছিলাম না, ও যা বলল শুনলাম। করোনার জন্য সবার মুখেই মাস্ক ছিল আমি চিনতেও পারিনি।

কৃতী আমার পাশে অনেকক্ষণ বসেছিল’। সুশান্তের বাবা জানান, অঙ্কিতা শুধু মুম্বইতে নন, পাটনার বাড়িতেও তার সঙ্গে এসে দেখা করেছেন। দুজনের ভাঙা সম্পর্ক নিয়ে সুশান্তের বাবা বলেন, ‘সবই ভাগ্যের হাতে, যা হওয়ার সেটা তো হয়েই গেছে’। অঙ্কিতাই একমাত্র সুশান্তের একমাত্র বান্ধবী যাঁর সঙ্গে আগেও কথা হয়েছে তাঁর বাবার।

প্রসঙ্গত পবিত্র রিসতা কো-স্টার অঙ্কিতা লোখান্ডের সঙ্গে প্রায় সাত বছরের প্রেম সম্পর্ক ছিল সুশান্তের। ২০১৬ ডিসেম্বরে তাঁদের বিয়ে করবারও কথা ছিল, যদিও সেই বছরের গোড়ার দিকেই এই সম্পর্কে ইতি পড়ে। এরপর রাবতা কো-স্টার কৃতী শ্যাননের সঙ্গেও সুশান্তের প্রেম সম্পর্কের চর্চা ঘুরে বেড়িয়েছে বলিউডের অলিতে গলিতে। কিন্তু সেই সম্পর্কে আনুষ্ঠানিক শিলমোহর পড়েনি কোনওদিনই।

সুশান্তের মৃ’ত্যুর পর এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া দেননি অঙ্কিতা। তবে ১৬ জুন সুশান্তের বান্দ্রার বাড়িতে শোকার্ত,বিধ্বস্ত অঙ্কিতার দেখা মিলেছিল। অভিনেত্রীর ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে খবর সুশান্তের মৃত্যুর খবর জানার পর থেকে পুরোপুরি ভেঙে পড়েছেন অঙ্কিতা, তাঁর চোখের জল থামছে না। অন্যদিকে কৃতী শ্যানন ১৭ই জুন ইনস্টা পোস্টে সুশান্তের জন্য একটি মন ছোঁয়া বার্তা লেখেন।

তিনি লেখেন, ‘সুস.. আমি জানি তোমার উজ্জ্বল মন তোমার সবচেয়ে প্রিয় বন্ধু ছিল এবং সবচেয়ে বড় শক্রুও…কিন্তু তুমি যা করলে তা আমাকে পুরোপুরিভাবে ভেঙে দিল,তোমার জীবনে একটা মুহূর্ত এসেছিল যখন তোমার মনে হয়েছিল বেঁচে থাকার থেকে মরে যাওয়া ভালো।

যদি তোমার সঙ্গে সেই সময় কেউ থাকত..সেই মুহূর্তটাতে, যদি তুমি সেই মানুষগুলোকে দূরে না ঠেলে না দিতে যারা তোমায় ভালোবাসত..যদি আমি পারতাম তোমার ভিতর ভেঙে যাওয়া সেই জিনসটাকে জুড়ে দিতে…আমি পারিনি.. আমি অনেক কিছু চেয়েছিলাম…আমার হৃদয়ের একটা টুকরো তুমি নিয়ে গেলে, আর একটায় তুমি বেঁচে থাকবে..তোমার জন্য প্রার্থনা করা কোনওদিনও বন্ধ করিনি,কোনদিনও করব না…’।

Check Also

চলতি মাসে টানা ছয় দিন বন্ধ থাকবে ব্যাঙ্ক, মাঝে একদিন খোলা, রইলো সম্পূর্ণ তালিকা

এই সপ্তাহে ব্যাঙ্কে যদি কোনো গুরুত্বপূর্ণ কাজ থাকে তাহলে এক্ষুনি আপনার এই খবর জেনে রাখা ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *