Breaking News
Home / NEWS / এবার পোস্ট অফিসেই তোলা যাবে ব্যাঙ্কের টাকা, জানুন পদ্ধতি

এবার পোস্ট অফিসেই তোলা যাবে ব্যাঙ্কের টাকা, জানুন পদ্ধতি

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকানোর জন্য যখন দেশজুড়ে জারি হয়েছে লকডাউন, সেসময় গণ যোগাযোগ মাধ্যম বন্ধ থাকায় অসুবিধায় অনেকেই। আর এই সকল অসুবিধা থেকে সাধারণ মানুষকে রেহাই দিতে সরকারিভাবে বিকল্প একগুচ্ছ পথ বেছে নেওয়া হচ্ছে। ঠিক তেমনই এবার টাকা তোলার ক্ষেত্রেও সহজ পথে রাস্তা দেখালো পোস্ট অফিস।

এবার কোন ব্যক্তির অ্যাকাউন্ট ব্যাঙ্কে থাকলেও সেই ব্যক্তি টাকা তুলতে পারবেন নিকটবর্তী পোস্ট অফিস থেকে। এই টাকা তোলার জন্য ওই ব্যক্তির পোস্ট অফিসে কোনো রকম অ্যাকাউন্ট থাকার প্রয়োজন নেই। আধার নম্বরের ভিত্তিতে যেকোনো গ্রাহক পোস্ট অফিস থেকে তুলতে পারবেন তাদের প্রয়োজনীয় টাকা নিজেদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে। এই নতুন পদ্ধতির ফলে উপকৃত হবেন লক্ষ লক্ষ গ্রাহক বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

ধরুন কারোর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট রয়েছে অথচ সেই ব্যাঙ্কের শাখা অথবা এটিএম কাউন্টার দূরে হওয়ায় সেখানে পৌঁছাতে পারছেন না। অথচ হাতের কাছে রয়েছে পোস্ট অফিস। সে ক্ষেত্রে ওই গ্রাহক পোস্ট অফিসের শাখায় পৌঁছে আধার নম্বরের মাধ্যমে নিজেদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে সঞ্চিত অর্থ সহজেই তুলতে পারবেন। তবে এই পরিষেবা নতুন নয়। গত ছয় মাস ধরে এই পরিষেবা চালু রয়েছে পোস্ট অফিসগুলিতে।

রাজ্যে ১৭০০ সাব-পোস্টঅফিসের পাশাপাশি ৭৩০৬টি গ্রামীণ ডাকঘর থাকলেও সর্বত্র ব্যাঙ্কের তত শাখা নেই। তাই ডাকঘরের মাধ্যমে ন্যূনতম ব্যাঙ্কিং পরিষেবা দেওয়া ওই পরিষেবা এখন আরও বেশি কাজে লাগছে। এপ্রিলে ডাকঘরগুলির মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে প্রায় ১.৫৪ কোটি তুলেছেন গ্রাহকেরা।

উল্লেখ্য, এই পরিষেবা বহন করার জন্য অবশ্যই গ্রাহকের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের সাথে আধার নম্বর যোগ থাকতে হবে। যদিও বর্তমানে বেশিরভাগ গ্রাহকের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের সাথে আধার নম্বর যোগ রয়েছে। সুতরাং নতুন করে কিছু আবেদন করার প্রয়োজন নেই।পোস্ট অফিসে গিয়ে আধার নম্বর দেওয়া ও পরবর্তী পর্যায়ে গুলিকে অনুসরণ করলেই এই সুবিধা ওঠানো যাবে। আর এর জন্য আলাদা কোনো চার্জও দিতে হবে না।

Check Also

জাঁকিয়ে শীত শুধু সময়ের অপেক্ষা, জানিয়ে দিলো হাওয়া অফিস

শুক্রবার থেকেই মুখভার রাজ্যের বিভিন্ন জেলার। মেঘলা আকাশের পাশাপাশি ঝিরঝিরে বৃষ্টিও লক্ষ্য করা গিয়েছে। আর ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *