Breaking News
Home / NEWS / এক বছর ধরে কাটা হবে বেতন, বাড়বে না ডিএ, কেন্দ্রের বড় ঘোষণা

এক বছর ধরে কাটা হবে বেতন, বাড়বে না ডিএ, কেন্দ্রের বড় ঘোষণা

বিশ্বে করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ফলে ইতিমধ্যেই ভেঙে পড়েছে বিশ্ব অর্থনীতি। ভারতেও তার প্রভাব পড়ছে ইতিমধ্যেই । দেশ জুড়ে লক ডাউন চলার ফলে দেশের রাষ্ট্র কোষেও টান পড়েছে। একদিকে দেশের একটি বড় জনসংখ্যার কাছে খবর ও অত্যাবশ্যকীয় দ্রব্য পৌঁছে দাওয়া এবং অন্য দিকে চিকিৎসা ক্ষেত্রে টাকা নিয়োগ এবং স্বাস্থ্য কর্মীদের বীমা – সব দিক সামাল দাওয়ার চেষ্টায় রাষ্ট্রের অর্থ ভান্ডারে টান পড়ছে।

সেই কারণে এবার কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মীদের বেতনের অংশ কটার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্র। চলতি মাসের একদিনের বেতন কাটা হবে কর্মীদের। মে মাসে সরকারি কর্মীদের যে বেতন দেওয়া হবে সেখান থেকেই কাটা যাবে একদিনের বেতন। তবে শুধু এই মাসেই না, আগামী এক বছর প্রতি মাসে কর্মীদের একদিনের বেতন কাটা হতে পারে কর্মীদের। সঙ্গে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের আপাতত বর্ধিত মহার্ঘ ভাতা না দেওয়ার সম্ভাবনাও দেখা গেছে।

মূলত অর্থনৈতিক মন্দার জেরে দেশের আর্থিক অবস্থার উন্নতির জন্যই এরকম সিদ্ধান্ত। কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মীদের বেতনের কিছুটা অংশ কেন্দ্রীয় রাজকোষে ভরে হাল ফেরানোর চেষ্টায় আছে কেন্দ্রীয় সরকার।

ফাইনান্সিয়াল এক্সপ্রেসে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে যে ইতিমধ্যেই রাজস্ব বিভাগে একটি কেন্দ্রীয় সরকারের সার্কুলার এসেছে। তাতে বলা হয়েছে, সরকার ঠিক করেছে, অফিসার ও কর্মীদের কাছে ২০২১ সালের মার্চ মাস পর্যন্ত প্রতি মাসে একদিনের বেতন প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে দেওয়ার জন্য আবেদন করা হবে।

সাথে এও বলা হয়েছে যে এই এই আবেদনে যদি কোনো অফিসার বা কর্মীর আপত্তি থাকে সেক্ষেত্রে তার নিজের এমপ্লয়ি কোড উল্লেখ করে বিষয়টি রাজস্ব দফতরকে জানাতে হবে এবং তা করতে হবে আগামী ২০ এপ্রিলের মধ্যে। কেন্দ্রীয় সরকারের আবেদন অনুসারে সরকারের যেসব বিভাগ বর্তমানে এই মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াই করছে তাদের বেতন কাটা হবেনা। বাকি অন্য সব দফতরের আগামী ১ বছরের প্রতি মাসের ১ দিনের বেতন প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে দাওয়ার জন্য আবেদন করা হয়েছে।

তবে এই ১ দিনের বেতন ছাড়া বর্তমান পরিস্থিতিতে কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মীদের বর্ধিত ডিএ না পাওয়ার সম্ভাবনা দেখা গেছে।বিগত বছরের ১৩ মার্চ কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা ৪ শতাংশ ডিএ বৃদ্ধির সিদ্ধ নিয়েছিল যা ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে কার্যকরী হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু এই বর্ধিত অংশ থেকে বর্তমানে বঞ্চিত হতে পারেন কর্মীরা। এছাড়াও পেনশনারদের জন্য ৪ শতাংশ ডিয়ারনেস রিলিফ (ডিআর) বৃদ্ধির যে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয় তাও বর্তমান পরিস্থিতিতে অকার্যকর হওয়ার সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে।

Check Also

গ্রাজুয়েশন কমপ্লিট থাকলেই মিলবে মোটা মাইনের চাকরি, যেভাবে আবেদন করবেন, রইলো পদ্ধতি!

ভারত অন্যান্য দেশের তুলনায় বেকারত্বের দিক থেকে অনেকটা পরিমাণে এগিয়ে । এই দেশে প্রতিদিন বেকারত্ব ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *