Breaking News
Home / HEALTH / ক’রোনাকালে আমলকি’র জুস খেয়েই দেখু’ন!

ক’রোনাকালে আমলকি’র জুস খেয়েই দেখু’ন!

করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করার অন্যতম হাতিয়ার হলো রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা। তাই, ইমিউন সিস্টেমকে শক্তিশালী করতে সুষম খাদ্য গ্রহণ, ইমিউনিটি ড্রিঙ্ক পান, শরীরচর্চা ও সঠিক স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার দিকে নজর দিচ্ছে মানুষ।

আজ এমন একটি ফলের কথা উল্লেখ করব, যা আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করতে সাহায্য করবে। লো ক্যালরি, লো ফ্যাটের কারণে এই ফলের জুস প্রতিদিনের ডায়েটে রাখলে খুব ভালো। এটি একটি সহজলভ্য ও স্বাস্থ্যকর ফল, যার নাম আমলকি।

আমলকির উপকারিতা

– প্রতিদিন সকালে কাঁচা আমলকি চিবিয়ে বা এর জুস বাড়িতে তৈরি করেও খেতে পারেন, অনেক উপকার পাবেন।

– আমলকির জুস রক্ত পরিষ্কার করতে সাহায্য করে।

– ডায়াবিটিস, হাইপারটেনশনের মতো রোগের ক্ষেত্রেও এই ফলের জুস অত্যন্ত কার্যকর।

– সকালের দিকে খালি পেটে এই ফলের জুস খেলে শারীরবৃত্তীয় কারণেই উপকার বেশি হবে এবং হজমশক্তিও বাড়বে।

– আমলকির জুস পান করলে প্রতিদিনের প্রয়োজনীয় ৪৬ শতাংশ ভিটামিন সি-এর প্রয়োজন মিটবে, পাশাপাশি এতে তামাও রয়েছে। এই দুটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াবে।

– ফ্লু ও কফ দূর করতে আমলকির জুস বেশ শক্তিশালী ঘরোয়া ওষুধ। দুই চা চামচ আমলকির রস মধু দিয়ে প্রতিদিন খেলে কফ ও ঠাণ্ডা প্রতিরোধ হয়।

– পানির মধ্যে এক চা চামচ রস নিয়ে দুই বেলা গার্গল করলে মুখের আলসার দূর হয়।

– নিয়মিত আমলকির জুস খেলে শরীরের বাজে কোলেস্টেরল কমে। এর মধ্যে থাকা এমাইনো এসিড ও অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট হৃদপিণ্ডের কার্যক্ষমতা বাড়ায়।

– ভিটামিন সি বাদেও এর মধ্যে রয়েছে আয়রন, ক্যালসিয়াম, ফসফরাসের জন্য এটি একটি পুষ্টিকর পানীয়ও বটে।

– আমলার মধ্যে থাকা এমাইনো এসিড ও প্রোটিন চুল বৃদ্ধিতে সাহায্য করে; এটি চুলপড়া প্রতিরোধ করে।

– আমলকির রস তুলায় ভিজিয়ে মুখে লাগান। এতে দাগ, ব্রণ দূর হবে। এ ছাড়া আমলকির জুস মুখের ছিদ্রভাব দূর করে।

Check Also

দাঁতে অ’সহ্য য’ন্ত্র’ণা, এই ঘরোয়া টোটকাতেই পাবেন ম্যাজিকের মত ফল

দাঁতে ব্য’থা অত্যন্ত য’ন্ত্রণাদা’য়ক, তাই দাঁতের স্বা’স্থ্য ধরে রাখতে কিছু ঘরোয়া টোটকা মেনে চলুন। নুন ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *