Breaking News
Home / VIRAL / ইচ্ছে থাকলেই উপায় হয়, ভাইরাল শিক্ষিকার অনলাইন ক্লাসের পদ্ধতির ভিডিও

ইচ্ছে থাকলেই উপায় হয়, ভাইরাল শিক্ষিকার অনলাইন ক্লাসের পদ্ধতির ভিডিও

করোনার ফলে যেমন অর্থনীতি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তেমনি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে শিক্ষা ব্যবস্থাও। দীর্ঘ সময় ধরে বন্ধ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলি। এজন্য যে সকল এলাকাতে ইন্টারনেটের ভালো সুবিধা রয়েছে সেই সকল জায়গায় শিক্ষক-শিক্ষিকারা অনলাইন ক্লাস করাচ্ছেন।

এখনই অনলাইন ক্লাস করানোর জন্য নানারকম উপকরণ দরকার। অনেকই সেগুলি কিনছেন, অনেকে সেগুলি জোগাড় করছেন, কেউ আবার হাতের কাছে থাকা সামগ্রী দিয়েই বানিয়ে ফেলছেন উপকরণ।

যেমন সম্প্রতি ভাইরাল হ‌ওয়া ভিডিওটিতে দেখা যায় পুনের একজন শিক্ষিকা ট্রাইপডের মাধ্যমে ক্লাস করাচ্ছেন। এই ট্রাইপডটি তার নিজে হাতে বানানো। এটি বানানোর জন্য তিনি সিলিং থেকে দুটি দড়ির সাথে একটি প্লাস্টিকের হ্যাঙ্গার বেঁধে দিয়েছেন এই হ্যাঙ্গারে আটকে দিয়েছেন মোবাইলটি। আর মোবাইলটি যাতে সরে না যায় সেই কারণে মেঝেতে রাখা প্লাস্টিকের চেয়ারের সঙ্গে বেঁধে দেওয়া আছে হ্যাঙ্গারটি। এই পদ্ধতিতে বোর্ডের উপর সহজেই ফোকাস করা যাচ্ছে।

অনলাইনে ক্লাস করাতে গেলে একজন শিক্ষিকা যখন বোর্ডে কোন কিছু বোঝান তখন দ্বিতীয় কোন ব্যক্তিকে পুরো বিষয়টি ক্যামেরাবন্দী করতে হয় অথবা ট্রাইপডের ব্যবহার করতে হয়। এই পদ্ধতিটি প্রয়োগ করলে অন্য কাউকে আর সাহায্য করতে হচ্ছে না বা খরচ করে ট্রাইপডও কেনার দরকার নেই।

শিক্ষিকার নাম মৌমিতা বি। তিনি রসায়ন বিভাগের শিক্ষিকা। তিনি যখন এই উদ্ভাবনী পদ্ধতিতে ক্লাস নিচ্ছিলেন তখন দূর থেকে কেউ এই পুরো পদ্ধতিটি ক্যামেরাবন্দি করেন এবং সেটি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন। শিক্ষিকার এই উদ্ভাবনী ক্ষমতা মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায়। সত্যিই এটি ভাইরাল হওয়ার মত একটি ভিডিও। আর যাকেই বলে ইচ্ছে থাকলে উপায় হয়।

শিক্ষক সম্প্রদায়কে জাতির মেরুদন্ড বলা হয়। কারণ তারাই একটা জাতিকে শিক্ষিত করেন। স্টুডেন্টদেরকে পড়ানোর জন্য এই যে উদ্ভাবনী ব্যবস্থা করলেন শিক্ষিকা, এটা কখনোই সম্ভব না যদি পড়ানোর প্রতি তার মানসিক আগ্রহ না থাকতো। এই ভিডিওটি দেখলে শিক্ষিকার প্রতি শ্রদ্ধায় মন ভরে ওঠে।

Check Also

এক’ফোটা দুধ পেতে মৃ’ত মায়ের পা’শে অবুঝ শিশুর আর্তনাদ

মাকে ডাকছে অবুঝ শিশু। কিন্তু সন্তানের ডাকে সাড়া নেই মায়ের। মা যখন সাড়া দিচ্ছে না ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *