Breaking News
Home / LIFESTYLE / করোনা প্রকোপের আবহে AC চালালেও মানতে হবে বিশেষ নিয়মাবলী, পরামর্শ কেন্দ্রের

করোনা প্রকোপের আবহে AC চালালেও মানতে হবে বিশেষ নিয়মাবলী, পরামর্শ কেন্দ্রের

চলতি বছরের শুরুর দিকেই চীনের উহান নগরী করোনার উৎস স্থলে পরিণত হয়। জানুয়ারিতে চীন সরকার উহান নগরীতে সম্পূর্ণভাবে লকডাউন ঘোষণা করেন। সেই সময় ‌‌গুয়াংঝোর একটি রেস্তোরাঁ থেকে ৯ জনের মধ্যে করোনা ভাইরাস সংক্রমিত হয়েছিল। গবেষণায় উঠে এসেছিল চাঞ্চল্যকর তথ্য, জানা গিয়েছিল রেস্তোরাঁর এসির মধ্য দিয়ে কোভিড সংক্রমিত হয়েছে ওই ৯ জন। এরপর এই বিষয়টি নিয়ে বিশেষজ্ঞরা দীর্ঘ গবেষণা করেন।

দীর্ঘ গবেষণার পর লন্ডনের চার্টার্ড ইনস্টিটিউশন অফ বিল্ডিং সার্ভিস ইঞ্জিনিয়ার্সের গবেষকরা কার্যত স্বীকার করে নেন যে, এসির থেকেও করোনা ভাইরাস ছড়াতে পারে।

ব্রিটেনের রয়েল একাডেমি অব ইঞ্জিনিয়ারিং-এর প্রধান ডঃ শন ফিৎজারল্যান্ডের কথায়, “বাতাসের মধ্যে দিয়েও যে করোনা ভাইরাস ছড়াতে পারে তার প্রমাণ সাম্প্রতিক কালের একাধিক গবেষণায় উঠে এসেছে। এসির মাধ্যমে বাতাসে বয়ে যাওয়া ভাইরাসের কণা ঘরের মধ্যে সংক্রমিত হতে পারে। এছাড়া ঠান্ডা ও শীতল পরিবেশে যে করোনাভাইরাস দীর্ঘক্ষন জীবিত থাকে একথা তো বৈজ্ঞানিক মহলে আগেই প্রমাণিত হয়েছে।”

এরপর সাধারণ মানুষকে সতর্ক করতে তিনি পরামর্শ দেন, “সংক্রমণের ঝুঁকি থাকলে এসি বন্ধ করে দেওয়াই ভালো, প্রয়োজনে ঘরের জানলা দরজা খুলে দেওয়া যেতে পারে।”

এই সকল গবেষণা নিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে এসির ব্যবহার সংক্রান্ত ভীতি কাজ করছে। তাই সাধারণ মানুষকে আশ্বস্ত করতে ভারত সরকার একটি অ্যাডভাইজরি জারি করেছে।

বর্তমানে করোনার আবহ ও এসির ব্যবহারে করোনার সংক্রমণ সামগ্রিক এই পরিস্থিতির বিচার করে আবহাওয়াবিদরা ভারতের জলবায়ুর উপর দীর্ঘ সমীক্ষা করেছেন। আর এই সমীক্ষার উপর নির্ভর করেই ইন্ডিয়ান সোসাইটি অফ হিটিং রেফ্রিজারেটিং অ্যান্ড এয়ার কন্ডিশনার ইঞ্জিনিয়ার্সরা জানিয়েছেন, এয়ার কন্ডিশন মেশিনের তাপমাত্রা কত হলে তা সাধারণ মানুষের ব্যবহারের জন্য নিরাপদ হয়?

ইন্ডিয়ান সোসাইটি অব হিটিং রেফ্রিজারেটিং অ্যান্ড এয়ারকন্ডিশনার ইঞ্জিনিয়ার্সরা করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে এসির ব্যবহার বিষয়ে বিশেষ যেসকল পরামর্শ দিয়েছেন সেই সকল পরামর্শের কথা মাথায় রেখে কেন্দ্রীয় সরকার এসির ব্যবহার সংক্রান্ত অ্যাডভাইজরিটি জারি করে। এই অ্যাডভাইজরিতে বলা হয়েছে, ঘরে যদি এসি চালাতেই হয় তাহলে সেই এসির তাপমাত্রা ২৪ থেকে ৩০ সেন্টিগ্রেডের মধ্যেই রাখতে হবে। তাপমাত্রা ২৪ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডের কম করা‌ যাবে না। আর আপেক্ষিক আদ্রতা অন্তত ৪০ শতাংশ রাখতেই হবে তবে সর্বোচ্চ আদ্রতা ৭০ শতাংশ পর্যন্ত করা যেতে পারে।

এছাড়াও এসি চালানোর ক্ষেত্রে এই অ্যাডভাইজরিতে বলা হয়েছে, বাড়িতে এসি চালানো হলেও জানলা কিছুটা হলেও খুলে রাখতে হবে। যাতে করে ভিতরে ঠান্ডা হওয়া সার্কুলেশনের সাথে সাথে বাইরের হাওয়া প্রবেশ করতে পারে।

Check Also

জীবনে খারাপ সময় আসবেই, ভেঙে না পড়ে এই ১০টি কথা মনে রাখুন কাজে লাগবে

সাফল্য অর্জনের দুর্গম পথ পাড়ি দেওয়ার সময় আম’রা এমন অবস্থার সম্মু’খীন ও হই যখন আমাদের ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *