Breaking News
Home / NEWS / উহানের ল্যাব থেকে ভাইরাস ছড়ানোর অজস্র প্রমাণ হাতে, দাবি আমেরিকার

উহানের ল্যাব থেকে ভাইরাস ছড়ানোর অজস্র প্রমাণ হাতে, দাবি আমেরিকার

চিনের ল্যাবরেটরি থেকেই যে করোনা ভাইরাস ছড়িয়েছে, সে ব্যাপারে বারবার সরব হয়েছে আমেরিকা। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কিংবা মার্কিন সচিব মাইক পম্পেও, উভয় একাধিকবার এই দাবি করেছেন। এমনকি এই ব্যাপারে তদন্তের নির্দেশও দিয়েছে ওয়াশিংটন।

ট্রাম্প আগেই বলেছেন যে তিনি সব দেখেছেন, কিন্তু বলতে পারছেন না। এবার মাইক পম্পেও ফের একবার জানালেন সেই কথা। বললেন বললেন ওমানের ল্যাবরেটরি থেকেই যে করোনা ভাইরাস ছড়িয়েছে সে ব্যাপারে নাকি প্রচুর প্রমাণ রয়েছে আমেরিকার হাতে।

সম্প্রতি এক সংবাদ মাধ্যমকে সাক্ষাত্কার দিতে গিয়ে মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেট মাইক পম্পেও বলেন, ওমানের ল্যাবরেটরি থেকেই যে এই মহামারী উৎপত্তি সে ব্যাপারে অজস্র প্রমাণ রয়েছে।

তবে কি চিন ইচ্ছাকৃতভাবে এই ভাইরাস ছড়িয়েছে? না এ ব্যাপারে মুখ খুলতে নারাজ তিনি।

যদিও সম্প্রতি মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থার একটি রিপোর্টে জানিয়েছে যে এই ভাইরাস মানুষের দ্বারা তৈরি হয়নি কিংবা জেনেটিকালি মডিফাইড নয়। তবে, গোয়েন্দা রিপোর্টের সঙ্গে একমত হলেও দাবি করেন, ল্যাবরেটরি থেকেই যে ভাইরাস ছড়িয়েছে তার গুরুত্বপূর্ণ প্রমাণ রয়েছে।

বৃহস্পতিবার একটি বিবৃতি দেওয়া হয়েছে আমেরিকার ডিরেক্টর অফ ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্সের অফিস থেকে। জানানো হয়েছে যে, করোনাভাইরাস মানুষের তৈরি নয় কিংবা জেনেটিকালি মডিফায়েড নয়। যদিও ওই গোয়েন্দা সংস্থাটি জানিয়েছে কোনও প্রাণী থেকে করোনা ভাইরাস ছড়িয়েছে নাকি উহানের ল্যাবরেটরি থেকেই এই ভাইরাসের উৎপত্তি, তা জানার জন্য সব রকমের চেষ্টা চালিয়ে যাবে ওই সংস্থা।

পম্পেও মনে করিয়ে দেন যে গোটা বিশ্বে সংক্রমণ ছড়ানোর ইতিহাস চিনার আগেই রয়েছে।

এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যদিও অভিযোগ করেছেন, উহানের গবেষণাগারেই যে কোভিড ভাইরাসের জন্ম তার প্রমাণ তাঁর কাছে রয়েছে। এবং তিনি নিজে সেই প্রমাণ দেখেছেন বলেও সাংবাদিকদের জানান। তাঁর দাবি, তিনি চিনা পণ্যের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি না করা হলে, বিপদ আরও বাড়ত।

মার্কিন সচিব মাইক পম্পেও আগেই আশঙ্কা প্রকাশ করে জানিয়েছেন, এই করোনা নামক ভাইরাসটি চিনের গবেষণাগারেই তৈরি। এর পিছনে চিনা বিজ্ঞানীদের হাত রয়েছে। তাঁর দাবি, যদিও অসাবধানতা বশত সেটি প্রথম চিনের উহান প্রদেশে ছড়িয়ে পড়ে। ধীরে ধীরে তা বিশ্বের অন্যান্য দেশগুলির সঙ্গে সখ্যতা স্থাপন করে চলেছে। তিনি চিনকে করোনা সংক্রান্ত যাবতীয় সঠিক তথ্য জানানোর নির্দেশ দেন। মাইক পম্পেও’র কথায়, চিনের উহান প্রদেশে ভাইরাস নিয়ে একটি গবেষণাগার রয়েছে। ফলে বাঁদুর নয়, ওই গবেষণাগারই করোনাভাইরাসের জন্মস্থান।

Check Also

মাধ্যমিক যোগ্যতায় চাকরি, ভারতীয় ডাকবিভাগে ৬৩৪ পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি জারি

চাকরিপ্রার্থীদের জন্য ভালো খবর। মাধ্যমিক পাশ যোগ্যতায় চাকরির বিজ্ঞ’প্ত ি প্রকাশ করল ভারতীয় ডাকঘর। ভারতীয় ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *